ঢাকা ০২:১২ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ২২ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ১০ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

ক্যারিয়ারে প্রথম এত সুন্দর মুহূর্ত দেখলেন কোনাল

‘একটি গান তৈরি পেছনে যে কষ্ট থাকে সেটা তখনই সার্থক হয় যখন দর্শক-শ্রোতাদের প্রতিক্রিয়াগুলো সুন্দর হয়। গানটি তারা ভালোবেসে গ্রহণ করেন বা তাদের মনে গেঁছে যায়। সেই ২০০৯ সালে রিয়েলিটি শোতে চ্যাম্পিয়ন হওয়ার পর থেকেই নিয়মিত প্লেব্যাক করছি। কিন্তু এত সুন্দর মুহূর্ত ক্যারিয়ারে প্রথম দেখতে পেলাম। পরপর দুটি ঈদে আমার একাধিক গান মানুষ ভালোবেসেছে। এজন্য আমার শ্রোতা এবং গানগুলোর সঙ্গে যারা যুক্ত ছিলেন তাদের সবার প্রতি কৃতজ্ঞতা।’ সাম্প্রতিক সময়ে নিজের একাধিক প্লেব্যাক জনপ্রিয়তা পাওয়ার অনুভূতি প্রসঙ্গে জানতে চাইলে কথাগুলো বলেন সংগীতশিল্পী কোনাল। রিয়েলিটি শো থেকে উঠে আসা এই শিল্পী শুরু থেকেই চলচ্চিত্রের গানে নিজেকে নিবিষ্ট রেখেছেন। তবে কোনাল শুধু প্লেব্যাক নয়, নিয়মিতই নিজের একক ও ডুয়েট গানও শ্রোতাদের উপহার দিচ্ছেন। এর বাইরে নাটক-ওয়েব সিরিজ ও স্টেজশো নিয়েও ব্যস্ত থাকছেন নিয়মিত। নিজের ব্যস্ততা নিয়ে কোনাল বলেন, ‘সম্প্রতি বেশ কয়েকটি নাটক ও সিনেমার গানে কণ্ঠ দিয়েছি। সামনে আরও কিছু গান রেকডিংয়ের প্রস্তুতি চলছে। একটা সময় নাটকের গানগুলোর প্রতি হয়তো নির্মাতা-প্রযোজকদের ততটা মনোযোগ ছিল না। কিন্তু এখন তারা খুবই যত্ন নিয়ে নাটকের গানগুলো করছেন। সেই জায়গা থেকে গত কয়েক বছর ধরে সিনেমার পাশাপাশি নাটকের গান যেমন করছি তেমনি অডিও লেভেল কোম্পানির গানগুলোতেও কণ্ঠ দিচ্ছি। সব মিলিয়ে দারুণ সময় কাটছে বলতে পারেন।’ এদিকে অনেকেই বলছেন দেশের সংগীত ইন্ডাস্ট্রির অবস্থা খুবই নাজুক পর্যায়ে রয়েছে। তবে বিষয়টি নিয়ে পুরো ভিন্নমত পোষণ করলেন কোনাল। তার কথায়, ‘আমার মনে হয়, আমাদের সংগীত ইন্ডাস্ট্রি এখন খুবই ভালো অবস্থানে রয়েছে। নাটক, সিনেমা, অডিও সব মাধ্যমেই কোভিড পরবর্তী সময়ে ঘুরে দাঁড়িয়েছে। গানটা তো অনেকটাই সিনেমার সঙ্গে সম্পৃক্ত। যত সুন্দর সুন্দর সিনেমা হবে তত সুন্দর সুন্দর গান হবে। একটি গানের প্রচার সিনেমার চেয়ে বেশি কোনো মাধ্যম করতে পারে না। যার প্রমাণ আমি নিজেই।’ একসময় অডিও লেভেল কোম্পানির রমরমা ব্যবসা থাকলেও এখন সেটা চোখে পড়ে না। অন্যদিকে শিল্পীরাও এককভাবে গান রিলিজ দিচ্ছেন। যে কারণে গানের প্রচার কমছে কি-না-এমন প্রশ্নে কোনাল বলেন, ‘না, লেভেল কোম্পানিগুলো কিন্তু প্রচুর গান করছে। তবে তারা মাধ্যম পরিবর্তন করে ডিজিটালইজড হয়েছে। আর শিল্পীরা এককভাবে গান প্রকাশ করছে এটা খারাপ কিছু না। বরং বাইরের দেশের চেয়ে আমরা পরে এই চর্চা শুরু করেছি।